বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১০:১৫ পূর্বাহ্ন

মধুখালীতে ইউপি নির্বাচনে তিন স্বতন্ত্র প্রার্থী বিজয়

স্টাফ রিপোর্টার,ই-কণ্ঠ টোয়েন্টিফোর ডটকম॥ফরিদপুরের মধুখালী উপজেলায় তিনটি ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে।এতে উপজেলার তিনটি ইউনিয়নের স্বতন্ত্র প্রার্থী বিজয় লাভ করেন।

আর এই তিনটি ইউনিয়নেই ভরাডুবি হয়েছে নৌকার।যার মধ্যে এক প্রার্থী জামানতও হারিয়েছেন।

ইউনিয়ন তিনটি হলো-আড়পাড়া, ডুমাইন ও মেগচামী।উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতারা মনে করেন, যারা যোগ্য প্রার্থী তারা দলীয় মনোনয়ন না চেয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়েছেন। পাশাপাশি দলে সমন্বয়হীনতার কারণে হেরে গেছেন প্রার্থীরা।

উপজেলা আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণাবিষয়ক সম্পাদক শাহ মো. ফারুক হোসেন  বলেন, ‘দলে শৃঙ্খলা নেই, রয়েছে মতভেদ। নেতারা একসঙ্গে সভা করেছেন কিন্তু ভেতরে ভেতরে একেকজন অন্যের হয়ে কাজ করেছেন।’জামানত হারানো আড়পাড়া ইউপি প্রার্থী সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘দেখা গেছে মনোনয়নের সময় তৃণমূল আওয়ামী লীগ ওই প্রার্থীর মনোনয়ন চেয়েছেন কিন্তু মনোনয়ন পাওয়ার পর তৃণমূল নেতারা তার পাশে ছিল না।

আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সরব উপস্থিতির কারণে  কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়াই অবাধ ও সুষ্ঠুভাবে বুধবার (২৭ জুলাই) সকাল ৮টা থেকে ৪টা পর্যন্ত এসব ইউপি নির্বাচনের ভোটগ্রহণ হয়। পরে ভোট গণনা শেষে বেসরকারিভাবে ফলাফল ঘোষণা করা হয় সন্ধ্যায়।

ফলাফলে আড়পাড়ায় মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী সাদিককুর রহমান সাজ্জাদ বিজয় লাভ করেন। তিনি পেয়েছেন ২৭৬২ ভোট। ঘোড়া প্রতীক নিয়ে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. বদরুজ্জামান বাবু পেয়েছেন ২২৬৭ ভোট। এ ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আরমান হোসেন বাবু পেয়েছেন মাত্র ২২১ ভোট।

ডুমাইন ইউনিয়নেও স্বতন্ত্র প্রার্থী শাহ আসাদুজ্জামান তপন বিজয়ী হয়েছেন। আনারস প্রতীক নিয়ে তিনি পেয়েছেন ৩৮৫১ ভোট। এ ইউনিয়নে নৌকার মনোনীত প্রার্থী খোরশেদ আলম মাসুম ৩২৩৬ ভোট পেয়ে পরাজিত হন।

এছাড়া মেগচামী ইউনিয়নে আনারস প্রতীক নিয়ে ৪৪৭৪ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. সাব্বির উদ্দিন শেখ। এ ইউনিয়নে নৌকার মনোনীত প্রার্থী মো. হাসান আলী খান ২৬২৮ ভোট পেয়ে পরাজিত হন।

জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহ মো. ইশরিয়াক আরিফ বলেন, ‘মধুখালীর ফলাফল আমাদের জন্য একটি দুঃখজনক ঘটনা। নেতা-কর্মীদের মধ্যে সম্বয়হীনতা এবং মনোনয়নের ক্ষেত্রে ত্রুটি থাকায় এ ঘটনা ঘটেছে।’

মধুখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রেজাউল হক বলেন, ‘তৃণমূলের মতামতের ভিত্তিতেই দলীয় মনোনয়ন দেওয়া হয়। তবে, যোগ্য ব্যক্তিরা দলীয় মনোনয়ন না চেয়ে স্বতন্ত্রভাবে নির্বাচন করেছেন। ফলে দল হেরে গেছে।’

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020  E-Kantha24
Technical Helped by Titans It Solution