শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১১:৩৭ পূর্বাহ্ন

শ্রীলঙ্কায় নোঙর করছে চীনের জাহাজ, ভারত উদ্বিগ্ন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ই-কণ্ঠ অনলাইন:: ভারতের উদ্বেগ সত্ত্বেও চীনের গবেষণার কাজে ব্যবহৃত একটি জাহাজকে বন্দরে নোঙর করার অনুমতি দিয়েছে শ্রীলঙ্কা।

ইন্টারন্যাশনাল শিপিং এবং অ্যানালাইসিস সাইটগুলো তথ্য অনুযায়ী ইউয়ান ওয়াং ৫ নামের জাহাজটি জরিপ ও গবেষণার কাজে ব্যবহার করে চীন সরকার। তবে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমগুলোর দাবি, এই জাহাজটিকে গুপ্তচরবৃত্তির কাজে ব্যবহার করা হয়।

স্বাধীনতা অর্জনের পর থেকেই শ্রীলঙ্কার ওপর প্রভাব বিস্তারের চেষ্টা করে আসছে ভারত ও চীন। আর্থিক সঙ্কটে ভুগতে থাকা শ্রীলঙ্কাকে এ বছর সবচেয়ে বেশি সহায়তা প্রদান করেছে ভারত। দেশটির দাবি, চীন শ্রীলঙ্কার হাম্বানটোটা বন্দরকে সামরিক ঘাটি হিসেবে ব্যবহার করছে। এশিয়া এবং ইউরোপের মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ সমুদ্র রুটে এই বন্দরের অবস্থান।

শ্রীলঙ্কার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, ইউয়ান ওয়াং ৫ জাহাজটির গত ১১ আগস্ট শ্রীলঙ্কার দক্ষিণ উপকূলে হাম্বানটোটার বন্দরে পৌঁছানোর কথা ছিল। তবে জাহাজটি এখন মঙ্গলবার (১৫ আগস্ট) পৌঁছাবে। শ্রীলঙ্কার অর্থনৈতিক সংকটের কারণে কয়েক মাস ধরে চলা বিক্ষোভের পর সাবেক প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপাকসে দেশ ছেড়ে পালিয়ে যাওয়ার একদিন আগে ১২ জুলাই জাহাজটিকে বন্দরে আসার অনুমতি দিয়েছিলেন।

শ্রীলঙ্কা হাম্বানটোটা গভীর সমুদ্র বন্দরটি ৯৯ বছরের জন্য চীনকে ১.১২ বিলিয়ন ডলারে লিজ দিয়েছে। এই বন্দরটি তৈরি করতে দেশটি চীনের একটি প্রতিষ্ঠানকে ১.১৪ বিলিয়ন ডলারে কাজ দিয়েছিল।

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানায়, তারা পুরো বিষয়টিকে পর্যবেক্ষণ করছে। ভারতের নিরাপত্তা ও অর্থনৈতিক স্বার্থের উপর প্রভাব ফেললে প্রয়োজনীয় সমস্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করতে প্রস্তুত রয়েছে তারা। তবে দিল্লি জানায়, তারা জাহাজটি ফেরত পাঠাতে শ্রীলঙ্কার ওপর কোনো ধরনের চাপ সৃষ্টি করেনি।

সূত্র: আল-জাজিরা

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020  E-Kantha24
Technical Helped by Titans It Solution