বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০২:১৭ অপরাহ্ন

শেরপুর-ধুনট আঞ্চলিক সড়কে সেতুর পাটাতন ভেঙে যান চলাচল বন্ধ

বগুড়া  প্রতিনিধি, ই-কণ্ঠটোয়েন্টিফোর ডটকম॥ বগুড়ার শেরপুর-ধুনট আঞ্চলিক সড়কের ভস্তার বিল খালের ওপর নির্মিত বেইলি সেতুর পাটাতন ভেঙে গেছে। এতে ওই সড়ক ব্যবহার করে চলা পাঁচ রুটের সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে। শনিবার (১৩ আগস্ট) সকালে এ ঘটনা ঘটে।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, শেরপুর-ধুনট আঞ্চলিক সড়কে বেশ কয়েকটি বেইলি সেতু রয়েছে। দীর্ঘ দিনের পুরোনো ও মেয়াদোত্তীর্ণ হওয়ায় এসব সেতু দিয়ে যানবাহন চলাচল খুবই ঝুঁকিপূর্ণ। তাই মাঝেমধ্যে সেতুগুলোর পাটাতন দেবে ও ভেঙে যাওয়ার ঘটনা ঘটছে। শনিবার সকালে ধুনট উপজেলার বোয়ালকান্দি নামক স্থানে নির্মিত বেইলি সেতুর একাংশের পাটাতন ও ট্যাংক জাম ভেঙে গেছে। এতে বন্ধ হয়ে গেছে শেরপুর, ধুনট, কাজীপুর, সোনামুখী ও মথুরাপুর রুটে চলাচলকারী সব ধরনের যানবাহন চলাচল।

সরেজমিনে দেখা যায়, জোড়াতালি দিয়ে মেরামতের জন্য সেতুটির ভেঙে যাওয়া পাটাতন ও ট্যাংক জাম (লোহার পাতি) খুলে ফেলা হচ্ছে। বেশ কয়েকজন শ্রমিক এই কাজে ব্যস্ত। সেতুর ওপর যেন কোনো যানবাহন উঠতে না পারে সেজন্য সেতুর মুখেই বাঁশ দিয়ে ব্যারিকেড দিয়ে রাখা হয়েছে। এছাড়া ক্ষতিগ্রস্ত সেতুতে যান চলাচল বন্ধ থাকায় অনেকেই নৌকায় করে খাল পার হয়ে গন্তব্যে যাচ্ছেন। আবার অনেকেই বাড়িতে ফিরে যাচ্ছেন।

ধান-চাল ব্যবসায়ী গোলাম রব্বানী বলেন, ব্যবসায়িক কাজে মোটরসাইকেল নিয়ে ধুনট যাচ্ছিলাম। কিন্তু বেইলি সেতু বন্ধ থাকায় বিপাকে পড়েছি। এক পর্যায়ে সাত-আট কিলোমিটার সড়ক ঘুরে গন্তব্যে পৌঁছায়।

সালমা বেগম বলেন, মেয়ের চিকিৎসার জন্য বগুড়া শহরে যাচ্ছি। কিন্তু পথিমধ্যে বোয়ালকান্দি ব্রিজের পূর্বপাশে বাস থেকে নামিয়ে দেওয়া হয়। সেইসঙ্গে বিকল্প যানবাহনে যেতে বলা হয়।

বাসচালক আনিছার রহমান ও শফিকুল ইসলাম বলেন, ঝুঁকিপূর্ণ সেতুগুলোতে ভয়ে ভয়ে যাতায়াত করতে হয়। তাছাড়া মাঝেমধ্যেই কোনো না কোনো সেতুর পাটাতন ভেঙে এমন অবস্থার সৃষ্টি হচ্ছে। ফলে সাধারণ মানুষ ভোগান্তির শিকার হচ্ছে।

স্থানীয় খানপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পিয়ার হোসেন পিয়ার বলেন, বেইলি সেতুগুলো বেশ পুরোনো। তাই ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। এমনকি যেকোনো সময় সেতু ভেঙে পড়ে বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে বলেও আশঙ্কা রয়েছে। তাই জোড়াতালি দিয়ে সেতু মেরামত না করে স্থায়ী সমাধান প্রয়োজন। এজন্য আরসিসি ঢালাই সেতু নির্মাণের বিকল্প নেই।

বগুড়া সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী আসাদুজ্জামান বলেন, ওই সেতুর পাটাতন ও ট্যাংক জাম ভেঙে গেছে। ইতোমধ্যে ক্ষতিগ্রস্ত সেতুর মেরামত কাজ শুরু করা হয়েছে। তিন দিনের জন্য যান চলাচল বন্ধ রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, এসব সেতু ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়ার বিষয়টি মন্ত্রণালয়ে জানানো হয়েছে। সেইসঙ্গে এসব বেইলি সেতুর স্থানে আরসিসি ঢালাই সেতু নির্মাণের প্রস্তাবও পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। প্রস্তাব পাস হলে দ্রুত সেতু নির্মাণ করা হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020  E-Kantha24
Technical Helped by Titans It Solution