সোমবার, ০৮ মার্চ ২০২১, ১১:৫৪ অপরাহ্ন

লোহাগড়ায় গৃহবধুকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ

নড়াইল প্রতিনিধি::

নড়াইলের লোহাগড়ার ইতনা গ্রামে একজন গৃহবধুকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে মঙ্গলবার সকালে নড়াইল সদর হাসপাতাল মর্গে নিহতের ময়না তদন্তের কাজ সম্পন্ন করেছে।

পুলিশ, এলাকাবাসী ও অভিযোগ সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার রামপুর গ্রামের লিটন শেখের মেয়ে শারমিন খানম (২২)’র সাথে প্রায় ৩ মাস পুর্বে একই উপজেলার ইতনা গ্রামের বাবলু শেখের ছেলে রিকাত শেখের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে তাদের সংসার সুখেই কাটছিল। কিন্তু শারমিনের স্বামীসহ তার পরিবারের সদস্যরা পরস্পর যোগসাজসে শারমিনের ওপর শারিরীক ও মানসিক নির্যাতন করে আসছিল। এর জের ধরে সোমবার অভিযুক্ত স্বামী রিকাত স্ত্রী শারমিনকে বেধড়ক মারপিট করে গালিগালাজ করে। এরপর বিকালে শারমিনের ঝুলন্ত লাশ পাওয়া যায়। এসময় ওই বাড়ির কোন সদস্যকে খুঁজে পাওয়া যায় নি। খবর পেয়ে লোহাগড়া থানার এসআই মাহফুজ আহম্মেদের নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে রাতেই লাশ থানায় নিয়ে আসেন এবং মঙ্গলবার সকালে নড়াইল সদর হাসপাতাল মর্গে নিহতের ময়না তদন্তের কাজ সম্পন্ন হয়েছে।

এদিকে গৃহবধুর পিতা লিটন শেখ অভিযোগ করে বলেন, সোমবার আমার জামাই রিকাত শেখসহ তার পরিবারের সদস্যরা আমার মেয়ে শারমিন (২২)কে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে পালিয়ে গেছে।

নিহত শারমিনের শ্বশুর বাবলু শেখ বলেন, আামি আমার বাড়ির পাশে নিজ দোকানে ছিলাম। বাড়ির থেকে আমাকে খবর দেয় আমার পুত্রবধু শারমিন গলায় দড়ি নিয়ে আত্মহত্যা করেছে। আমি বাড়ি এসে দেখলাম ঘরের আড়ার সাথে বৌমার লাশ ঝুলে আছে।

লোহাগড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সৈয়দ আশিকুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ময়না তদন্তের রিপোর্ট পেলে এটি হত্যা নাকি আত্মহত্যা বিষয়টি পরিষ্কার হবে।’

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020  E-Kantha24
Technical Helped by Titans It Solution